কবি মোঃ কামাল মাহামুদ এর রচিত কবিতা “তুমি ভালো আছো?”


DBkhobor24 প্রকাশের সময় : অগাস্ট ১০, ২০২২, ১:১৯ PM /
কবি মোঃ কামাল মাহামুদ এর রচিত কবিতা “তুমি ভালো আছো?”

তুমি ভালো আছো?
—-কবি: মোঃ কামাল মাহামুদ

তুমি আছো আমার হৃদয়জুড়ে
আমি আছি তোমার মস্তিস্কে
তুমি আছো আমার ভালোবাসায়
আর আমি? তোমার ঘৃনায়
তবুওতো আছি আমি, আছো তুমি
ভালোবাসা আর ঘৃনায় মিলেমিশে…
কফি হাউজের ধূমায়িত কাপের
চুমুকে “আহ” বলতেই
প্রানের সঞ্চারণে হেসে বলেছিলে
দয়াগন্জ মোড়ের সুনীলের গুড়ের চা
অমৃতের চেয়েও সুস্বাদু!
বাঁশপট্টির মনসুরের চটপটির ঝালে
জল এসেছিল যখন চোখে
পানির বোতল এগিয়ে বলেছিলে
আমার বাড়ীর মোড়ের মান্নু চাচার
ফুচকা যদি খেতেন, বলতেন
মান্নু চাচাই গ্রেট!
বেলি রোডের বিখ্যাত ফুল পিঠা,
চিতই পিঠা কিংবা পাটিশাপটা দেখে
রাগের অভিনয়ে হালকা স্বরে বলতে
মসজিদ গলির করিমন চাচীর চিতই আর
ভাপা পিঠা আপনাকে খাওয়াবো একদিন।
তখন বলবেন, আহা! কেন যে আগে খেলাম না
তাহলে টাকাগুলো সব বেঁচে যেতো!
মাছ বাজারে দর কষাকষি দেখে
যখন চেয়ে থাকতাম অপলক চোখে
বুঝতে পেড়ে লাজুক হেসে বলতে
বাজার করেননি তো কখনও
তাই জানেন না, ওরা কতটা ঠকবাজ!
শুনে হাসতাম দেখে ক্ষেপে যেতে।
রাস্তা পাড়াপাড়ে আমি বরাবরই ভীতুর ডিম
জানতে বলেই হাত ধরে পাড় করতে। আর
বকবক করে বলতে, “ছোট্ট খোকা!”
কেন যে আসেন জ্বালাতে,
রাস্তায় চলতে ফিরতে পারেন না
আবার প্রেম করার শখ!
গায়ে-হলুদে কোন পান্জাবি পড়বো
বিয়েতে জিন্স-টি শার্ট, না ফর্মাল ড্রেস
আগের রাত থেকেই ঘুম হারাম করে ফেলতে
ভিডিও কলে পান্জাবী, শার্ট, প্যান্ট
টি-শার্ট, জিন্স দেখানোর পর বলতে
এটার সাথে ওটা পড়বেন,
ছবি পাঠিয়ে সিগনাল দিয়ে বলতে
ঈশ! আমি যদি থাকতাম,
তাহলে অন্যরা দেখে হিংসে করতো
আমি হাসতাম দেখে লজ্জায় বলতে
ধূর! কি যে বলি না!
মাথা, মুণ্ডু নেই কিছু!
বিশ্বাস করো এমন হাজারও স্মৃতি
হাজারও পাগলামি, আমার বেঁচে থাকার প্রান!
মুগ্ধ আমি মোহগ্রস্ত আমি যখন
হাটতাম তোমার পাশে পাশে
তখন অজানা ভালোলাগায়
স্বর্গের স্বাদ পেতাম!
আজ সব স্মৃতি, বেদনার দগদগে ঘা!
তুমি দিব্যি ভালো আছো
হেসে কুটিকুটি হয়ে এলিয়ে পড়ছো
গান গেয়ে, পার্টি করে বেড়াচ্ছো
অথচ আমি জ্বলে পুড়ে অঙ্গার!