অনন্য এক রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব সহকারি অধ্যাপক হুমায়ুন কবির সংগ্রাম


DBkhobor24 প্রকাশের সময় : অক্টোবর ২২, ২০২২, ৮:৪৪ PM /
অনন্য এক রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব সহকারি অধ্যাপক হুমায়ুন কবির সংগ্রাম
আল-আমিন.নীলফামারী:

নীলফামারীর সামাজিক ও রাজনৈতিক অঙ্গনে রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব প্রায়ত বীরমুক্তিযোদ্ধা লোকমান হোসেন প্রামানিক একটি আদর্শিক রাজনৈতিক প্রতিষ্ঠানের নাম। আদর্শিক মতপার্থক্য ও মতভেদ থাকলেও বীরমুক্তিযোদ্ধা লোকমান হোসেন প্রামানিক জীবদ্দশায় রাজনৈতিক মতপ্রকাশের শৈলী, রাজনৈতিক শিষ্টাচার ও সংস্কৃতির চর্চা, রাজনৈতিক প্রতিদ্বন্দ্বিতা ও গণতান্ত্রিক অনুশীলনগুলো ছিল রাজনীতিবিদদের কাছে অনুকরণীয়, অনুসরণীয়। তিনি একজন বঙ্গ-বন্ধু’র আদর্শিক সৈনিক হিসাবে নীলফামারীর রাজনৈতিক মহলে স্থান করে নিয়েছিলেন।

তারই উত্তরাধিকারী সৎ-আদর্শবান ও উচ্চ-শিক্ষিত সহকারী অধ্যাপক হুমায়ুন কবির সংগ্রাম। তিনি ইটাখোলা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি পদ-প্রাপ্তি’র জন্য তার জীবন-বৃত্তান্ত সদর উপজেলা আওয়ামীলীগের দপ্তরে দাখিল করেছেন। এখন আওয়ামীলীগের রাজনীতি করতে হলে সংশ্লিষ্ট দলীয় কমিটির দপ্তরে জীবনবৃত্তান্ত দাখিল করতে হবে, এ ঘোষনা দিয়েছেন বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সভাপতি জননেত্রী শেখ হাসিনা।

উদীয়মান তরুন নেতা হুমায়ুন কবির সংগ্রাম তার জীবন-বৃত্তান্তে বলেছেন, তার বাবা প্রায়ত বীরমুক্তিযোদ্ধা লোকমান হোসেন প্রামানিক জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মজিবুর রহমানের আদর্শ-উদ্দেশ্য ধারণ করে ইটখোলা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ প্রতিষ্ঠা করে সভাপতির দায়িত্ব পালন করেন মৃত্যু’র পূর্বমহুর্ত পর্যন্ত। তিনি দীর্ঘ রাজনৈতিক জীবনে ইউনিয়ন-উপজেলা ও জেলা আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা পদে দায়িত্ব পালন করেছেন।

মহান মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের স্বরণে নীলফামারী জেলা শহরের প্রাণ-কেন্দ্রে নির্মিত স্মৃতি অম্ননের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করেন। রাজনৈতিক জীবনে বিভিন্ন শিক্ষা-ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানের পরিচালনা পর্ষদের দায়িত্ব পালন করেছেন। পাশাপাশি সামাজিক-সাংস্কৃতিক ও খেলাধুলার কর্মকান্ডে জড়িত ছিলেন তিনি। তার বড় ভাই সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান হাফিজুর রশীদ প্রামানিক মঞ্জু ২০০৬ সাল থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত নীলফামারী জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন। বর্তমানে তিনি জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি’র দায়ত্ব পালন করছেন। তিনি ইটাখোলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়াম্যান হিসাবে দায়িত্ব পালন করেন ২০ বছর।

এ জীবন-বৃত্তান্তে হুমাউন কবির সংগ্রাম বলেছেন, আমার প্রায়ত পিতার রাজনৈতিক জীবনের কর্মকান্ডের অনুসূচনায় তিনি ১৯৯০ সালে নীলফামারী সরকারি কলেজের সংসদ নির্বাচনে ছাত্রলীগের ব্যানারে নাট্য সস্পাদক পদে বিজয় অর্জন করি বিপুল ভোটে। ১৯৯৩ সালে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের নবাব আব্দুল লতিফ হলে’র সংসদের নির্বাচনে ছাত্রলীগ প্যানেলে ক্রীড়া সম্পাদক পদে বিজয় লাভ করে দক্ষতার সাথে সাংগঠনিক দায়িত্ব পালন করি।

জীবন সংগ্রামে বর্তমানে নীলফামারী মশিউর রহমান ডিগ্রী কলেজের সহকারী অধ্যাপক পদে কর্মরত আছি। পাশাপাশি শিক্ষক প্রতিনিধি নির্বাচনে টিআর পদে নির্বাচনে অংশ নিয়ে বিপুল ভোটে জয়লাভ করে শিক্ষক প্রতিনিধি হিসাবে দায়িত্ব পালন করছি। বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সভাপতি জননেত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, এখন বাংলাদেশ আওয়ামীলীগে প্রাথমিক সদস্য পদ ও নেতৃত্ব গ্রহনকারীদের জীবনবৃত্তান্ত সংশ্লিষ্ট কমিটি’র দপ্তরে দাখিল করতে হবে।

এ সিদ্ধান্ত মোতাবক গত ২১ সেপ্টেম্বর ইটাখোলা ইউনিয়নের বর্ধিত সভায় হুমায়ুন কবির সংগ্রাম তার জীবন বৃত্তান্ত যাছাই-বাছাইয়ের জন্য সদর উপজেলার আওয়ামীলীগের দপ্তরে দাখিল করেছেন বলে জানা গেছে।

খোদ দলীয় একাধিক সুত্রে জানা গেছে নীলফামারী সদর উপজেলার ইটাখোলা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের নেতৃত্বে’র জীবন-বৃত্তান্তের পর্যোলচনায় তার রাজনৈতিক দক্ষতা ও উচ্চ শিক্ষায় শিক্ষিত হওয়ায় তাকেই ইটাখোলা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি দায়িত্ব দেওয়া হলে দলের সাংগঠনিক ভিত্তি শক্তিশালি হবে বলে মন্তব্য করেছেন সংশ্লিষ্টরা।